ঈদুল আজহার নামাজের নিয়ম

ঈদুল আজহার নামাজের নিয়ম

ঈদুল আজহার নামাজের নিয়ম
ঈদুল আজহার নামাজের নিয়ম

মুসলমানদের সবচেয়ে বড় দুইটি উৎসবের মধ্যে ঈদুল আজহা অন্যতম। প্রতি বছর ত্যাগের মহিমা নিয়ে আমাদের মাঝে ঈদুল আজহা আসে। ঈদুল আজাহাকে অনেকেই কোরবানি ঈদ বলে জানি। কারণ ঈদুল আজহাতে পশু কোরবানি দেওয়া হয় মহান আল্লাহ তায়ালার সন্তুষ্টি অর্জন করার জন্য।

কোরবানির ঈদ বা ঈদুল আজহা মুসলমানদের একটি ধর্মীয় উৎসব হলেও ঈদের দিন সকালের নামজ খুব গুরুত্বপূর্ণ। তাই মুসলিমরা অতি গুরুত্ব সহকারে ঈদুল আজহার নামাজ আদায় করে থাকে। তবে আমাদের মধ্যে অনেকেই আছেন যারা ঈদুল আজহার নাময পড়ার নিয়ম সম্পর্কে জানেন না। এর পিছনে অবশ্য কারণ আছে। কারণ ঈদের নামায গুলো প্রতি বছর আমরা দুইবার পড়ি তাই অনেকেই এই নামাজের সঠিক নিয়ম সম্পর্কে অবগত নয় অথবা জানলেও অনেকদিন না পড়ার কারণে ভুলে যান। তাই আজকের এই আর্টিকেলের মাধ্যমে পবিত্র ঈদুল আজহার নামাজের সঠিক নিয়ম সম্পর্কে আলোচনা করব।

ঈদুল আজাহা কি

ঈদুল আজহা বা কোরবানির ঈদ হলো মুসলমানদের সবচেয়ে বড় ধর্মীয় উৎসবের একটি। প্রতিবছর জিলহজ মাসের ১০ তারিখ ঈদুল আজহা পালিত হয়। ত্যাগের মহিমায় পশু কোরবানি দেওয়ায় মাধ্যমে মুসলিমরা ঈদুল আজহা পালন করে। ইসলাম ধর্মে ঈদুল আজহা আলাদা তাৎপর্য বহন করে।

ঈদুল আজহার নামজের নিয়ত

আমাদের মধ্যে অনেকেই মনে করেন ঈদুল আজহার নামজের নিয়ম আরবিতেই করতে হবে। কিন্তু এইটা ঠিক নয় নামজের নিয়ত আপনি যে কোন ভাষায় করতে পারেন কোন সমস্যা নেই তবে আরবি পারলে ভাল। তবে ঈদুল আজহার নামাজের নিয়ত মনে মনে পড়া ভাল। নিচে ঈদুল আজহার নামজের নিয়ত দেওয়া হলো।

নাওয়াইতু আন উছাল্লিয়া লিল্লাহি তা আলা রাকয়াতাই ছালাতি ঈদিল আযহা মাআ ছিত্তাতি তাকবীরাতি ওয়াজিবুল্লাহি তা আলা ইক্বতাদাইতু বিহাজাল ইমামি মুতাওয়াজ্জিহান ইলা জিহাতিল কাবাতিশ শারীফাতি আল্লাহু আকবার।

আপনি যদি আরবিতে না পারেন তাহলে মনে মনে বাংলাতে নিয়ত করলেও হবে।

See also  ভোটার আইডি কার্ড চেক,Voter ID Card Check

ঈদুল আযহার নামাজ কয় রাকাত

ঈদুল আযাহার নামাজ দুই রাকাত পড়তে হয় এবং এই নামাজ হলো ওয়াজিব নামাজ। তবে অনান্য ওয়াজিব নামজ থেকে ঈদুল আযাহার নামজ গুরুত্বপূর্ণ। মুসলিম ছেলেদের জন্য ঈদুল আজহার নামাজ ওয়াজিব হলেও মহিলাদের জন্য তা সুন্নৎ।

ঈদের নামাজ কয় তাকবীর

দুই ঈদের দুই রাকাত ওয়াজিব নামজে অতিরিক্ত ৬ টি তাকবির দিতে হয়। প্রথম রাকাতে ৩ টি এবং দ্বিতীয় রাকাতে ৩ টি সব মিলে মোট ৬ টি তাকবির অতিরিক্ত দিতে হয় ঈদের নামজের ক্ষেত্রে।

ঈদুল আজহার নামাজের নিয়ম

ঈদুল আজাহা এবং ঈদুল ফিতর দুই ঈদের দুই রাকাত ওয়াজিব নামাজ পড়ান নিয়ম হলো।

  • প্রথমে ইমামের সঙ্গে তাকবিরে তারহিমা আল্লাহ আকবর বলে উভায় হাত কান পর্যন্ত তুলে হাত বাঁধা।
  • তারপর সানা পড়া।
  • এখন ইমাম সাহেব অতিরিক্ত তিন তাকবির দিবে প্রথম দুই তাকবিরে হাত কান পর্যন্ত নিয়ে ছেড়ে দিতে হব এবং তৃতীয় তাকবিরে হাত বাঁধতে হবে।
  • তারপর ইমাম সূরা ফাতিহা সহ অন্য যে কোন একটি সূরা পড়বে।
  • তারপর নিয়মিত নামাজের মতো রুকো সিজাদহ দিয়ে প্রথম রাকাত শেষ করবে।
  • এরপর দ্বিতীয় রাকাতে সূরা ফাতিহা সাথে অন্য যে কোন একটি সূরা মিলাবে।
  • তারপর অতিরিক্ত তিনটি তাকবির দিবে সকল তাকবিরের সময় হাত কান পর্যন্ত তুলে ছেড়ে দিতে হবে এবং চতুর্থ তাকবিরে সরাসরি রুকোতে চলে যেতে হবে।
  • রুকো সিজদাহ্ শেষ করে শেষ বৈঠকে তাশাহহুদ, দরূদ, দোয়া মাসুরা পড়ে সালাম ফেরানোর মাধ্যমে নামাজ সম্পন্ন করা।

এই নিয়মে মূলত ঈদুল আজহা এবং ঈদুল ফিতরের নামাজ পড়া হয়।

নামাজের সালাম ফেরানোর পর তাকবির পড়া

ঈদের নামাজ শেষ হওয়ার পর তাকবির পড়তে হয়। নিচে তাকবির দেওয়া হলো।

আল্লাহু আকবর, আল্লাহু আকবার, লা ইলাহা ইল্লাল্লাহু ওয়াল্লাহু আকবার আল্লাহু আকবর ওয়া লিল্লাহিল হামদ।

সর্বশেষে ইমাম সাহেব মুসলিমদের উদ্দেশ্য খুতবা পাঠ করবেন আর মুসলিরা তা শুনবে।

See also  আসল ভিটমেট চেনার উপায় দেখুন | Official Vidmate Apps Identifie

ঈদের নামাজের সময়

ঈদুল আজহা এবং ঈদুল ফিতর দুই ঈদের সালাত সকালেই সম্পন্ন করতে হয়। বাংলাদেশের প্রেক্ষাপটে সাধারণত সকলা ৭ টা থেকে সকাল ১০ টার মধ্যে মুসুল্লিরা ঈদের নামজ পড়ে থাকেন। তবে সকালের দিকে ঈদের নামজ পড়া ভাল।

Sarker Tahsin

Hello friends, my name is Imon Miah, I am the Writer and Founder of this blog Infolinebd and share all the information related to Blogging, SEO, Internet, Sports news, Review, Make Money Online, News and Technology through this website. Know for infolinebd about

Related Posts

1 Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

You cannot copy content of this page